লাইফস্টাইল

শাহবাগে দুই ভবনের মাঝে পড়ে ছিল ব্যারিস্টারের স্ত্রীর নিথর দেহ!

রাজধানীর শাহবাগ থানার পরীবাগ এলাকার দুই ভবনের মাঝামাঝি জায়গা থেকে ইভানা লায়লা চৌধুরী (৩২) নামের এক নারীর নিথর দেহ উদ্ধার করা হয়েছে।

বুধবার (১৫ সেপ্টেম্বর) সন্ধ্যা সোয়া ছয়টার দিকে পুলিশ তাঁকে ঢাকা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে নিয়ে গেলে চিকিৎসক জানান, তাঁকে মৃত অবস্থায় আনা হয়েছে। ইভানা লায়লা চৌধুরী সপরিবার পরীবাগের সাকুরা গলির নবাব হাবিবুল্লাহ রোডে একটি নয়তলা ভবনের পঞ্চম তলায় থাকতেন। তাঁর স্বামী ব্যারিস্টার আব্দুল্লাহ মাহমুদ হাসান। তিনি সুপ্রিম কোর্টের আইনজীবী। তাঁদের সংসারে দুই ছেলে রয়েছে।

বিষয়টি নিশ্চিত করে শাহবাগ থানার উপ-পরিদর্শক (এসআই) মো. আব্বাস আলী বলেন, জরুরি সেবা নম্বর ৯৯৯-এ খবর পেয়ে বিকেল ৩টা ৪০ মিনিটে ঘটনাস্থলে যাই। সেখানে গিয়ে দেখি দুটি ভবনের মাঝে ওই নারী র.ক্তা.ক্ত অবস্থায় পড়ে আছেন। এরপর তাকে উদ্ধার করে সন্ধ্যায় ঢাকা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালের জরুরি বিভাগে নিয়ে গেলে চিকিৎসক জানান, আগেই তাঁর মৃত্যু হয়েছে।

তিনি আরও জানান, নিহতের শ্বশুর মো. ইসমাইল হোসেন একজন অবসরপ্রাপ্ত সচিব। নিহতের স্বামী আবদুল্লাহ মাহমুদ হাসান একজন ব্যারিস্টার। ইভানা মিরপুর স্কলাসটিকা স্কুলে চাকরি করতেন। নিহত ইভানার সঙ্গে হাসানের ২০১১ সালে বিয়ে হয়। তাদের দুটি ছেলে রয়েছে।

নাম প্রকাশে অনিচ্ছুক ওই পরিবারের একজনের সঙ্গে কথা বলে জানা যায়, তার শারীরিক সমস্যা ছিল। এ কারণেই তিনি ৯ তলা থেকে লাফ দিয়ে আ.ত্ম.হ.ত্যা করে থাকতে পারেন। তারা ওই ভবনের ৫ তলায় থাকেন।

এ বিষয়ে শাহবাগ থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) মওদুত হাওলাদার জানান, ঘটনাস্থলের সিসিটিভি ফুটেজ দেখে প্রাথমিকভাবে ধারণা করা হচ্ছে ওই নারী ভবন থেকে লাফিয়ে আ.ত্ম.হ.ত্যা করেছেন। পারিবারিক কলহের কারণে তিনি এ ঘটনা ঘটাতে পারেন বলে ধারণা করছে পুলিশ। তারপরও সবকিছুই তদন্ত করে দেখা হচ্ছে।

Related Articles

Close